ওমিক্রনে আক্রান্ত বুঝবেন কী করে? কী কী উপসর্গ রয়েছে?

  • Home
  • aa
  • Corona
  • ওমিক্রনে আক্রান্ত বুঝবেন কী করে? কী কী উপসর্গ রয়েছে?

ওমিক্রনে আক্রান্ত বুঝবেন কী করে? কী কী উপসর্গ রয়েছে?

দক্ষিণ আফ্রিকাতে সদ্য আবিষ্কার হওয়া সার্স-কোভ-২ (করোনাভাইরাসের)-এর একটি ভ্যারিয়েন্ট বা প্রজাতি ‘ওমিক্রন’। করোনাভাইরাসের নতুন রূপ পাওয়া যাওয়ার পর বিশ্বজুড়ে আলোড়ন সৃষ্টি হয়েছে।মাইক্রোবায়োলজির নমেনক্লেচারে যে এমন নাম দিতে হতে পারে, তা ভাবা যায়নি। কিন্তু কতটা ক্ষতিকারক করোনার এই নয়া চরিত্র?  কীভাবেই বা বুঝবেন ওমিক্রন সংক্রমণ ঘটেছে আপনার শরীরে।

Delta Varient-এর থেকেও ভয়ঙ্কর Omicron variant। আরও বেশি সংক্রামক এবং আরও দ্রুত হারে ছড়িয়ে পড়তে চলেছে করোনার এই নয়া প্রজাতি, আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন বিশেষজ্ঞরা। অন্যদিকে, দক্ষিণ আফ্রিকার চিকিৎসক Dr. Angelique Coetzee-এর দাবি, Omicron-এর উপসর্গ খুবই মৃদু। এদিকে, দক্ষিণ আফ্রিকার এক চিকিৎসক নতুন কোভিড ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রনের লক্ষণগুলি কী কী তা প্রকাশ্যে এনেছেন।

ওমিক্রন নিয়ে আতঙ্ক যেমন বাড়ছে, তেমনই বাড়ছে এ সম্পর্কে জ্ঞানও। ইতিমধ্যেই অনেকে দাবি করা শুরু করেছেন, ওমিক্রন অত্যন্ত দ্রুত ছড়ালেও এর ভয়াবহতা করোনার অন্য রূপগুলোর তুলনায় কম। তবে এই সব দাবি এখনও প্রমাণসাপেক্ষ। কিন্তু কোন কোন উপসর্গ দেখলে বোঝা যাবে, ওমিক্রন কি না, তা নিয়ে ইতিমধ্যেই বেশ কিছু তথ্য বিজ্ঞানীদের নাগালে এসে গিয়েছে।

কোন কোন লক্ষণ দেখলে বোঝা যাবে ওমিক্রনেরই সংক্রমণ হয়েছে? বিজ্ঞানীরা এখনও পর্যন্ত কয়েকটি উপসর্গ চিহ্নিত করেছেন। সেগুলো হল:

  • জ্বর
  • মাথা যন্ত্রণা
  • ক্লান্তি
  • গলাব্যথা

মজার কথা, অন্য রূপগুলোর কারণে যেমন স্বাদ এবং গন্ধের বোধ কমে যায়, ওমিক্রনের কারণে এই সমস্যাগুলো ততটাও হয় না। এগুলোই ওমিক্রনের প্রধান লক্ষণ বলে ধরা হচ্ছিল। কিন্তু সম্প্রতি ইংল্যান্ডের কয়েক জন চিকিৎসক আরও একটি উপসর্গকে চিহ্নিত করতে পেরেছেন। এটি ওমিক্রনের সংক্রমণ চিনতে সাহায্য করবে বলে মত তাঁদের।

কী এই উপসর্গ? তাঁদের মতে, ওমিক্রনের সঙ্গে অন্য একটি জীবাণুর সংক্রমণের মিল রয়েছে। এটির নাম প্যারাইনফ্লুয়েঞ্জা। এই জীবাণুটির সংক্রমণ হলে রাতে ঘুমের মধ্যে প্রচণ্ড ঘাম হয়। ওমিক্রনের ক্ষেত্রেও তাই। শতাধিক ওমিক্রন আক্রান্তের ওপর সমীক্ষা চালিয়ে জানা গিয়েছে, তাঁদের বেশির ভাগেরই এই সমস্যা হচ্ছে।

সেখান থেকেই বিজ্ঞানীদের মত, ওমিক্রনের অন্যতম লক্ষণ এটিই। তবে ইতিমধ্যেই ওমিক্রন ৩৭টা মিউটেশন ঘটিয়ে ফেলেছে। সেই কারণেই ভ্যাকসিন একে কতটা আটকাতে পারবে, তা নিয়ে ইতিমধ্যেই সন্দেহে রয়েছেন বিজ্ঞানীরা। তবে এই ৩৭ রকমের ওমিক্রনের বেশির ভাগের ক্ষেত্রেই আক্রান্তদের রাতে ঘুমের মধ্যে ঘাম হচ্ছে। তাই বেশি করে এই লক্ষণটার দিকেই নজর রাখতে বলছেন তাঁরা।

Leave A Reply